Friday, May 31, 2024
- Advertisment -spot_img

ফের উত্তপ্ত হয়ে উঠলো বাঁকুড়ার বিষ্ণুপুরের উলিয়াড়া গ্রাম

স্টাফ রিপোর্টার, বাঁকুড়া: গতকাল রাতের অন্ধকারে গ্রামে ব্যাপক বোমাবাজি ও আটটি বাড়ি ভাঙ্গচুরের অভিযোগ উঠলো দূস্কৃতিদের বিরুদ্ধে। বিষ্ণুপুর থানার পুলিশ বিষ্ণুপুরের উলিয়াড়া গ্রামে পৌঁছে একটি বোমা উদ্ধার করেছে বলে জানা গেছে। প্রসঙ্গত, ২০২০ র ১ আগষ্ট খুন হন স্থানীয় পঞ্চায়েতের প্রাক্তন প্রধান, উলিয়াড়া গ্রামের বাসিন্দা বাবর আলি সেখ। ঐ ঘটনায় নাম জড়ায় বর্তমান প্রধানের স্বামীর। পরে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে। তবে গতকাল বোমাবাজি বিষয়ে কেও বলেন প্রাক্তন পঞ্চায়েত প্রধানে খুন করার সময় খুনিদের দেখে ফ্যলে তার ছেলে, তাই প্রধান সাক্ষী কে খুন করতেই এই ঘটনা। আবার তৃণমূলের এক অংশের দাবি এলাকা দখলের কারণেই বোমাবাজি। এই বিষয়ে তৃণমূলের দুই নেতার অভিযোগের আঙুল একে অপরের দিকে। তবে কি বিধানসভা নির্বাচনের পর উলিয়াড়া গ্রামে আবারও তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব প্রকাশ্যে এলো? মৃত বাবর আলি শেখের মেয়ে মামনি খাতুনের দাবি, বাবাকে খুন করতে দেখেছিল ভাই। তাই ভাইকে সরিয়ে দিতেই এই আক্রমণ বলে তিনি দাবি করেন।
স্থানীয় তৃণমূল কর্মী শেখ সাবের আলি বলেন, গত বিধানসভা ভোটে বিষ্ণুপুর কেন্দ্রে আমরা হেরে গেছি। আগে যারা সিপিআইএম করতো সেলিম পালোয়ান সহ অন্যান্যরা বিজেপিতে নাম লিখিয়ে গ্রামে অশান্তি সৃষ্টি করছে বলে তিনি দাবি করেন। বিষ্ণুপুর ব্লক যুব তৃণমূলের সহ সভাপতি সেলিম পালোয়ানের দাবি, তিনি ঐ ঘটনায় যুক্ত নন। তিনি বিজেপিতে কখনোই যাননি।

দায়িত্বশীল তৃণমূল কর্মী হিসেবেই তিনি কাজ করছেন বলে জানান। এলাকায় ব্যাপক উত্তেজনা রয়েছে। বিশাল পুলিশ বাহিনী এলাকায় টহলদারি শুরু করেছে। তবে বেলিয়াড়া গ্রামে বোমাবাজির ঘটনায় উলিয়ারা অঞ্চল সভাপতি রুস্তম আলি খান সহ সাত জনকে গ্রেফতার করেছে বিষ্ণুপুর থানার পুলিশ এমনটাই জানা গেছে।

অন্যান্য খবর: 

RELATED ARTICLES

कोई जवाब दें

कृपया अपनी टिप्पणी दर्ज करें!
कृपया अपना नाम यहाँ दर्ज करें

spot_img

Most Popular

Recent Comments